• মঙ্গলবার, অক্টোবর ২৭, ২০২০

সিনহার বই বাংলাদেশে মেকি গণতন্ত্রের মুখোশ খুলে দিয়েছেঃ মাইলাম

Posted on by

সম্প্রতি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে সাবেক বিচারপতি এস কে সিনহার ‘এ ব্রোকেন ড্রিম রুল অব ল, হিউম্যান রাইটস এন্ড ডেমোক্রেসি’ বইয়ের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশে নিযুক্ত সাবেক আমেরিকান রাষ্ট্রদূত উইলিয়াম বি মাইলাম। তার এদেশে রাষ্ট্রদূতকালীন সময় ছিল ১৯৯০ সাল থেকে ১৯৯৩ সাল। তিনি লবিয়িস্ট হিসেবে বিভিন্নজন ও সংগঠনের পক্ষে কাজ করেন। এ অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকায় ফের আলোচনায় এসেছেন তিনি।

কানাডা প্রবাসী বাংলাদেশি সাংবাদিক জয়তি সিমি জানান, সভাপতির ভাষণে মাইলাম বলেন, সিনহাকে বলপ্রয়োগ করে বর্তমান সরকারের বিদেশে পাঠানো দুঃখজনক। তার এই বই মেকি গণতন্ত্রের মুখোশ খুলে দিয়েছে। কানাডি প্রবাসী এ সাংবাদিক জানান, তার এমন মন্তব্যে তখন সেখানে উপস্থিত অনেক বাংলাদেশিই প্রশ্ন তুলেছেন, উইলিয়াম মাইলাম কি আসলে বাংলাদেশের ভালো চান?
তিনি বেসরকারি টিভি চ্যানেল একাত্তরের সিনিয়র সাংবাদিক ফারজানা রুপাকে এর আগে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে বলেছিলেন, বাংলাদেশে জামায়েতে ইসলামী নিষিদ্ধ করা হবে ভুল সিদ্ধান্ত। এই জামায়েতে ইসলামীকেই পরিশুদ্ধ দল হিসেবে দেখতে চান মাইলাম এবং তার ধারণা এ দলটি রাজনীতিতে বড় ভূমিকা রাখবে। লেখক সৈয়দ বদরুল আহসান বলেন, মাইলাম অবশ্যই একনায়কতান্ত্রিক শাসন পদ্ধতির বাহক। তিনি বাংলাদেশ ও পাকিস্তান বিষয়ে গণতন্ত্রের ভবিষ্যৎ নিয়ে যখনই যা বলেছেন সেটিই দুই দেশের গণতন্ত্রকে অবিকশিত পথে ঠেলে দেয়ার প্ররোচনামূলক।

প্রথম আলোতে ২০১৪ সালে সাবেক মার্কিন রাষ্ট্রদূত উইলিয়াম বি মিলামের একটি নিবন্ধ প্রকাশিত হয়। এই নিবন্ধে মিলাম বলেন, বাংলাদেশের শেষ সংসদ নির্বাচনে জনগণের অংশগ্রহণ ব্যতীত। এমন প্রায়শই ঘটেছে। বাংলাদেশ একটি কর্তৃত্ববাদী শাসনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে।
২০১৬ মে নিউইয়র্ক টাইমস এ ‘বাংলাদেশে টেররিজমের উৎস কোথায়’ শিরোনামের লেখায় বলেছেন যেভাবে টেররিস্টদের উত্থান ঘটছে তা উদ্বেগজনক। বিচারব্যবস্থা ঠিকভাবে কাজ করছে না বলে অভিযোগ রয়েছে এবং পুলিশ বিরোধীদলকে দমন-পীড়নে লিপ্ত।
এদিকে নিউইয়র্ক থেকে এনআরবি নিউজ সূত্র জানায়, সাবেক প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহার বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের আদালতে মামলা হচ্ছে। ‘এ ব্রোকেন ড্রিম : রুল অব ল, হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড ডেমোক্রেসি ’ নামক আত্মজীবনী বইতে এমন কিছু তথ্য ও মতামত প্রকাশ করা হয়েছে যা আপত্তিজনক।

যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের জ্যেষ্ঠ যুগ্ম সম্পাদক নিজাম চৌধুরীর মার্কিন অ্যাটর্নি এই মামলার কার্যক্রম শুরু করেছেন বলে ২৭ সেপ্টেম্বর জানা গেছে। নিউ ইয়র্ক সিটির বিখ্যাত একটি ল’ ফার্মেও এক কর্মকর্তা এনআরবিকে জানায়, ‘মামলার সামগ্রিক প্রেক্ষাপট খতিয়ে দেখা হচ্ছে। শিগগিরই ফেডারেল কোর্টে আবেদন করা হবে।’ মামলা দায়ের হয়নি বলে ফার্মের নাম নাম গোপন রাখছেন তারা।

সংবাদ উৎস – আমাদের সময়

Leave a Reply

Developed by: TechLoge

x