• সোমবার, অক্টোবর ২৬, ২০২০

দুঃখ একটাই, জিয়ার বিচার করতে পারলাম না : প্রধানমন্ত্রী

Posted on by

ঢাকা ডেস্ক :: আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানকে ঘাতক উল্লেখ করে বলেছেন, `আমার দুঃখ একটাই, সপরিবারে জাতির পিতা হত্যাকারী জিয়াউর রহমানের বিচার করতে পালনাম না। বিচারের আগেই সে মরে গেল।’

আজ বুধবার বিকেলে শোক দিবসের মাসব্যাপী কর্মসূচির অংশ হিসেবে ধানমন্ডি ৩২-এ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান স্মৃতি জাদুঘর সংলগ্ন এলাকা কৃষক লীগ আয়োজিত রক্তদান কর্মসূচির উদ্বোধন শেষে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্টের মতো নারকীয় ঘটনা জাতির পিতাকে হত্যার পর কর্নেল ফারুক, রশীদ বিবিসিতে সাক্ষাৎকার দিয়েছিল। তাদের ধারণ ছিল এই দেশে এই নারকীয় হত্যাকাণ্ডের বিচার হবে না। পরবর্তীতে যারা ক্ষমতায় এসেছিল এই দেশ থেকে জাতির জনকের নামটি মুছে দিতে চেয়েছিল।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘অনেক চড়াই উৎরাই শেষে দীর্ঘ ২১ বছর পর আওয়ামী লীগকে ক্ষমতায় আনে এদেশের মানুষ। ক্ষমতায় এসেই জাতির জনকের বিচার কাজ শুরু করি। এই বিচার কাজ বন্ধ করার জন্য দেশে বিদেশে কত চক্রান্ত হয়েছে। চক্রান্তের জাল ভেদ করে সুনির্দিষ্ট আইনী প্রক্রিয়ায় বিদেশ থেকে এনে বঙ্গবন্ধু হত্যাকারীদের বিচার কার্য সম্পাদন করা হয়।’

আওয়ামী লীগ সভানেত্রী বলেন, ‘৭৫ খ্রিস্টাব্দের ১৫ আগস্টের পর শাসকেরা সঠিক ইতিহাস মুছে দিয়ে নতুন ইতিহাস লিখতে চেয়েছিল। কিন্তু তাদের সেই স্বপ্ন বাস্তিবায়িত করতে দেয়নি এদেশের মানুষ। এই দেশের মানুষের কাছে আমি কৃতজ্ঞ। তারাই আমাকে ক্ষমতায় এনে প্রমাণ করেছে ইতিহাস মুছে ফেলা যায় না।’

শেখ হাসিনা বলেন, ‘মৃত্যুকে আমি পরোয়া করি না। আমি বেঁচে আমি গরীব দুখী মানুষের মুখে হসি ফোটাতে। বাংলাদেশকে একটি মর্যাদাশীল রাষ্ট্র গঠন করব। বাংলাদেশকে সোনার বাংলা হিসেবে গড়ে তুললেই সেই রক্তের ঋণ শোধ করতে পারব।’

আওয়ামী লীগ সভাপতি বলেন, ‘সবার কাছে একটা অনুরোধ যেভাবে বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে সে যাত্রা যেন বন্ধ না হয়। যখনেই কোনো অর্জন হয়, দেশের জন্য কিছু একটা করি তখনেই মনে হয় দেশের জন্য জীবন উৎসর্গকারী আমার বাবা-মা বেহেশত থেকে এই দৃশ্য দেখছেন।’ দৈনিক আমাদের সময়

Leave a Reply

Developed by: TechLoge

x