আজকে

  • ৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
  • ১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং
  • ৮ই মুহাররম, ১৪৪০ হিজরী
 

সোশ্যাল নেটওয়ার্ক

৩ ডিসেম্বর অধ্যায়-এর কাব্যসন্ধ্যা কবি আহমদ ময়েজ: কবি ও কবিতা, বিমূর্ত চরণে রাখি কালের ক্ষমা

Published: বৃহস্পতিবার, নভেম্বর ৩০, ২০১৭ ২:২০ পূর্বাহ্ণ    |     Modified: বৃহস্পতিবার, নভেম্বর ৩০, ২০১৭ ৭:৪০ অপরাহ্ণ
 

ইউকে বিডিটাইমস ডেস্ক,লন্ডন, ২৯ নভেম্বর:

তৃতীয় বাংলা বলে খ্যাত লন্ডনের বাংলা পাড়ায় সাহিত্য-সাস্কৃতিক কর্মকান্ডের প্রসার বিশেষ করে বাংলা কাব্যচর্চায় যারা নিরলস ভূমিকা রেখে যাচ্ছেন তাদের অন্যতম সাপ্তাহিক সুরমার সম্পাদক, কবি আহমদ ময়েজ। বোদ্ধা কবি ও সাহিত্যিক মহলে ইতোমধ্যে শুদ্ধতা ও শুভ্রতার কবি হিসেবে খ্যাত এই কবির কিছু নির্বাচিত কবিতা নিয়ে বৃত্ত ভেঙ্গে বিন্দু হয়ে বেরিয়ে আসার স্পর্ধায় পথচলা শুরু লন্ডনের কবি-সাহিত্যিকদের প্লাটফরম অধ্যায় এক কাব্যসন্ধ্যার আয়োজন করতে যাচ্ছে। আগামী ৩ ডিসেম্বর, রোববার পূর্ব লন্ডনের বাঙালি সংস্কৃতিচর্চার প্রাণকেন্দ্র ব্রাডি আর্টস সেন্টারে ‘কবি আহমদ ময়েজ কবি ও কবিতা: বিমূর্ত চরণে রাখি কালের ক্ষমা’ শীর্ষক এই মনোজ্ঞ কাব্যসন্ধ্যার নান্দনিক মঞ্চায়ন অনুষ্ঠিত হবে।
কাব্যসন্ধ্যাটিতে কবির বাছাইকৃত কবিতা থেকে আবৃত্তি করবেন বিলেতের সক্রিয় ও সুপরিচিত আবৃত্তিকারদের অন্যতম তৌহিদ শাকীল, স্মৃতি আজাদ, মোস্তফা জামান নিপুণ, সৈয়দ রুম্মান, সুমা দাস, বর্ণালী চক্রবর্তী, সাগর রহমান ও উর্মিলা আফরোজ। এছাড়াও ছড়াগান পরিবেশন করবেন সঙ্গীতশিল্পী হিরা কাঞ্চন হিরক এবং একটি বিশেষ পর্বে অংশ নেবেন আবৃত্তিশিল্পী মুনিরা পারভীন।
অনুষ্ঠানটি অধ্যায়ের ব্যানারে হলেও তা সফলে বিলেতের সর্বস্তরের কবি, সাহিত্যিক ও সাংবাদিকবৃন্দ সহযোগিতার হাত প্রসারিত করেছেন। ইতোমধ্যে কবিদের অন্যতম সক্রিয় প্লাটফরম ওয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ কবিতাস্বজন এর পক্ষ থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে সহযোগিতার আশ্বাস প্রদান করা হয়েছে। এছাড়া পুরো অনুষ্ঠানটি লাইভ সম্প্রচারে সম্মত হয়েছে এলবি টুয়েন্টিফোর টিভি।


হালকা নৈশভোজের মাধ্যমে সমাপ্তি ঘটবে অনুষ্ঠানের। অধ্যায়ের পক্ষ থেকে সবার জন্যে উন্মুক্ত, ৩ ডিসেম্বরের উক্ত কাব্যসন্ধ্যা উপভোগ করার জন্যে বিলেতের বাঙালি কমিউনিটির সর্বস্তরের মানুষের উপস্থিতি কামনা করা হয়েছে।
উল্লেখ্য, অনুষ্ঠানটিকে কেন্দ্র করে একটি স্মারকও প্রকাশিত হবে। ওই স্মারকগ্রন্থে আবৃত্তির জন্যে কবি আহমদ ময়েজের বাছাইকৃত কবিতার সাথে তাঁর সম্পর্কে বিলেতের সাহিত্যিক-সাংবাদিকদের মূল্যায়নধর্মী লেখা অন্তর্ভূক্ত থাকবে। এখানে উল্লেখ্য যে, অনেকেই এই কবিকে নিয়ে বিস্তারিত ও সুদীর্ঘ লেখা পাঠিয়েছেন এবং আরো অনেকে লেখার আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। কিন্তু স্মারকটির আকার ছোট রাখার স্বার্থে অনুষ্ঠানে আবৃত্তির বাছাইকৃত কবিতারগুলোর সাথে ইতোমধ্যে যাদের লেখা পাওয়া গেছে তাদের লেখার অংশ বিশেষ উক্ত স্মারকে অন্তর্ভূক্ত হবে এবং পরবর্তীতে সব লেখা নিয়ে শীঘ্রই একটি সম্পূর্ণ গ্রন্থ প্রকাশিত হবে।

 
 
 

এই বিভাগের আরও সংবাদ

 

ক্যালেন্ডার